BNP creates issue to endorse Jamaat violence!


This slideshow requires JavaScript.

Though they’re allies, the BNP had been looking for an ISSUE to legitimise its bond with war criminal Jamaat-e-Islami. And throughout February, it tried to malign the OCCUPY SHAHBAGH movement as Jamaat and its like-minded Islamist parties are doing through different propaganda.

The BNP’s latest programme was announced Monday afternoon just after the explosion of several handbombs near its rally at Naya Paltan. Interestingly, Mirza Fakhrul declared the hartal in a way that he knew beforehand of the blast.

I guess it was pre-planned as 10 bombs were found at the BNP office in a police raid! After the anniuncement, BNP men clashed with police and charged several bombs. Party insiders say there were many Jamaat-Shibir activists present at the rally.

Quite a show to call hartal

বিএনপির কার্যালয়ে পুলিশের হানা

The law enforcers detained several top BNP leaders from the party office building including Mirza Fakhrul.

It should be mentioned that there’s an international conference scheduled for Tuesday & Wednesday when representatives from 51 countries will join to discuss on population. It’s part of a UN programme.

BNP has been opposing the govt since mid-2009, and since June 2011 has been demonstrating for a caretaker govt after it was abolished in parliament. Many people including me, the media and a quarter in the AL also favour the CG system, but they won’t like to join hands with the BNP.

Jamaat is not declaring any open protest programme now but its supporters are resorting to violence — attack on the state machinery, pro-liberation people and the symbols of our independence — almost every day, especially following the verdict in Quader Mollah case, death of blogger Razib and death sentence of Sayedee.

The govt is in a fix now about using force on the Jamaat-BNP gangs since excesses would put its role in a questionable state and not using force might cause more harm of the people. But I can’t accept detention of Mirza Fakhrul as it’d give the BNP-Jamaat another chance to indulging in violence. Paramilitary force BGB has been deployed.

The situation at the mass sit-ins is also tense due to the series of attacks. Latest, pro-Jamaat Islamist party Hefazot-e-Islam (custodian of Islam) has declared a hartal for March 13 in Ctg when the SHAHBAGH leaders are supoosed to join a Mass Rally in the port city where the protests began a day after Dhaka. The radical Islamist party says it would resist the atheists. It has also called a rally to thwart the people’s protest that demands death penalty of all war criminals including the Janaat top brass who in 1971 were involved in the planning and execution of genocide, rape, arson and looting against Bangladeshis. They publicly worked for Pakistan army.

Jamaat supporters across the country are still attacking on police and people of the Hindu community, who they suspect are pro-Awami League and therefore, against Jamaat-Shibir.

Their attacks are so brutal that even the Jamaat aides like the US State Dept, HRW, Amnesty and the UK govt could not refrain themselves from denouncing Jamaat atrocities which they’re carrying out in the name of protesting against the International Crimes Tribunal.

Meanwhile, the process of banning Jamaat-Shibir has been deferred by at least a month as the High Court today gave both the state and the defence one month to hear the pending petition. It’s the most frustrating news of the year!!! And, it also increases panic among people who are non-violent.

It semms that the AL is not ready to hadle this situation.

As of 10pm, BNP-Jamaat supporters in many places across the country have started violent attacks and taking out protest processions in support of Tuesday’s hartal so that people refrain from coming out for work during the shutdown.

Note: BNP is the party which allowed Jamaat politics in Bangladesh and AL held caretaker movement with Jamaat for three months but later regretted.

The allegations raised against the tribunal and the govt by BNP & Jamaat are same.

5 comments

  1. বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া সরকারের সঙ্গে আলোচনার সম্ভাবনা নাকচ করে দিয়েছেন। তিনি বলেন, ‘খুনি সরকারের সঙ্গে কথা বলে কোনো লাভ হবে না। এই সরকারের পতন ছাড়া কোনো সমস্যার সমাধান হবে না। এ জন্য আন্দোলন করতে হবে। হয়তো এ জন্য আরও কিছু প্রাণহানি হবে, জানমালের ক্ষতি হবে। কিন্তু দেশের স্বার্থে, মানুষের স্বার্থে এইটুকু ক্ষতি মেনে নিতে হবে।’ http://prothom-alo.com/detail/date/2013-03-16/news/337017

    প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, খালেদা জিয়ার মুখোশ খুলে গেছে। তিনি যে দেশের স্বাধীনতা চাননি, তা প্রমাণিত হয়েছে। দেশের উন্নয়ন-অগ্রগতি তাঁর পছন্দ নয় বলেই যুদ্ধাপরাধীদের পক্ষ নিয়ে দেশকে ধ্বংসের দ্বারপ্রান্তে নিয়ে যেতে দেশে তিনি তাণ্ডব চালাচ্ছেন। http://prothom-alo.com/detail/date/2013-03-16/news/337029

    Like

  2. বিরোধীদলীয় নেতা ও বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া বলেন, এ সরকারকে এখন আর সময় দেওয়া যায় না। সরকার একদিকে আমাদের মিছিল-মিটিংয়ে গুলি করছে, অন্যদিকে বিধর্মী নাস্তিকদের পাহারা দিয়ে, খাওয়া-দাওয়া দিয়ে লালন করছে। সরকারের অপকর্ম ঢাকা দেওয়া এবং দুর্নীতি চাপা দিয়ে মানুষের দৃষ্টি অন্যদিকে ফেরানোর জন্য এ কাজগুলো করছে।

    শাহবাগের গণজাগরণ মঞ্চের প্রতি ইঙ্গিত করে সরকারের উদ্দেশে খালেদা জিয়া বলেন, এই যে মঞ্চ-ফঞ্চ বানাচ্ছেন আর পাহারা দিচ্ছেন, এসব বন্ধ করুন। না হলে জনগণের মঞ্চ যখন তৈরি হবে, তখন আর কেউ আপনাদের বাঁচাতে পারবে না।

    পুলিশ নির্বিচারে গুলিবর্ষণ করে এ পর্যন্ত ১৭০ জনকে হত্যা করেছে। এ গণহত্যার জন্য তাঁদের বিচারের সম্মুখীন হতে হবে। এই গণহত্যার জন্য আবারও বিচার হবে, ট্রাইব্যুনাল হবে।

    প্রশাসনকে উদ্দেশ্য করে বলেন, এভাবে কথায় কথায় গুলি চালানো বন্ধ করুন, সরকারের অন্যায় আদেশ মানা বন্ধ করুন। আর যদি এভাবে গুলি চালাতে থাকেন, একদিন আপনাদের অবশ্যই জবাব দিতে হবে। শুধু জবাবদিহি নয়, এই গণহত্যার জন্য আপনাদের বিচার হবে, ট্রাইব্যুনাল হবে।

    খালেদা জিয়া অভিযোগ করেন, এখন মানুষের দৃষ্টি ফেরানোর জন্য সরকারের লোকজন সংখ্যালঘুদের ওপর হামলা করছে, তাদের বাড়িঘর ভাঙছে, নির্যাতন করছে। আমি সরকারকে বলব, সংখ্যালঘুদের হামলা বন্ধ করুন। নইলে এর জন্য আপনাদের শাস্তি পেতে হবে। তিনি সংখ্যালঘুদের উদ্দেশ্যে বলেন, আমরা আপনাদের পাশে আছি, থাকব, সব রকম সহায়তা দেব।

    Like

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s