Tags

, ,


নির্বাচনী কেন্দ্রে যে হারে হামলা হচ্ছে, রাস্তাঘাটে যেভাবে নৃশংস মারামারি হচ্ছে-মানুষসহ গাড়ি পোড়ানো হচ্ছে পেট্রোল বোমায়, নিরাপত্তা বাহিনীর উপর যেভাবে আক্রমন হচ্ছে…আর সেসব কারনে বিভিন্ন বয়সের বিভিন্ন সমাজের-ধর্মের মানুষের যে মানসিক-শারীরিক-আর্থিক ক্ষতি হচ্ছে। এই অবস্থায় নির্বাচনটা করা ঠিক হচ্ছে না।তবে এটা ঠেকানোর কোন ক্ষমতা আমার নাই। এই মুহুর্তে আশা করছি রবিবার সেনাহস্তক্ষেপে সহিংসতা কম হবে।

সরকারি ও বিরোধী উভয় নেত্রীকেই আমার অন্তরের অন্তঃস্থল থেকে গভীর আবেগের সহিত নিন্দা জানাচ্ছি তাদের জনবিরোধী রাজনৈতিক সহিংস অবস্থানের জন্য। একজন ক্ষমতা ছাড়বেন না, কনফার্ম করে ছাড়বেন। অপরজনের দুইটা ইস্যু — ক্ষমতায় যেতে হবে আবার রাজাকারগুলাকেও বাঁচাতে হবে।

যারা নেত্রীদের কাউকে পছন্দ বা সমর্থন করেন তাদের কাছে সহনীয় মনে মনে হলেও আমার কাছে তারা নন। কিন্তু আমি যেহেতু এই অবস্থায় নিরুপায় ও পরিবর্তনে কার্যত অক্ষম, তাই মুখ বুজে সয়ে যাওয়া। আর তাই সবসময় একটা মিরাকলের অপেক্ষায় থাকি, যেদিন আমাদের দেশের সবচেয়ে ক্ষমতাধর কয়েকজন মানুষ বদলে একটু মানবিক হবেন।

আপনারা তো ভিআইপি, আপনাদের ‘আপনি’ করে লিখতে হচ্ছে, সরকারি কর্মকর্তাদের তো সালাম দিতে হয়, স্যার-ম্যাডাম ডাকতে হয়, এটা-সেটা ফ্রী করে দিতে হয় — আপনাদের অনেক দাম, যেকোন আমপাবলিকের চেয়ে কয়েক লাখ গুন বেশি। আপনার একটা কলমের খোঁচায় ঘটে যেতে পারে যুদ্ধ অথবা কোটি কোটি হতদরিদ্রের জন্য আশ্রায়ন প্রকল্প বাস্তবায়ন।

সংবিধান রক্ষার দোহাই না দিয়ে আপনি সংসদে এক মিনিটেই তা সংশোধন করতে পারতেন, সময়ের প্রয়োজনের দোহাই দিয়ে এদেশের সব সরকারই সংবিধানবিরোধী সংশোধনী এনেছে। এদেশের অক্ষম জনগন সবসময়ই মুখ বুজে মেনে নিয়েছে, কেউ কেউ হয়তো চোখে আঙুল দিয়ে দেখিয়ে দিয়েছে, কিন্তু সব সরকারই না বুঝার ভান করে থেকে নিজেদের ফায়দা হাসিল করেছে। দীর্ঘ দুই যুগের জামায়াতবন্ধু সেনাশাসনের পর তথাকথিত ক্ষমতা ও টাকাপাগল গনতান্ত্রিক দুইদল ১৯৯১ থেকে যা করছে তা কোনমতেই এই যুগের সাথে যায় না।

আমরা আমপাবলিক এইসব ক্ষমতার পোকাদের থেকে ভালো বুঝি জনগনের সমস্যা ও তার সমাধান, কিন্তু আমরা এইসব জানোয়ারদের সাথে একই মাঠে প্রতিযোগীতায় নামতে চাই না। মাঠের বাইরে বা গ্যালারিতে বসে খেলার ভাগ্য নির্ধারন কি করে সম্ভব?

সারমর্মঃ এই নির্বাচনেই বুঝা যাবে কারা আওয়ামীলীগ-সমর্থিত এই সরকারকে সামনের দিনে ক্ষমতায় দেখতে চায়। বাই দ্যা ওয়ে, আগামী নির্বাচনটা কবে দিবেন একটু কষ্ট করে জানালে আপনার একান্ত অনুগত প্রজা হিসেবে কৃতজ্ঞ থাকবো। জয় বাংলা!

About these ads